সোমবার, ১৭ জানুয়ারী ২০২২, ১২:২৪ পূর্বাহ্ন

চুয়াডাঙ্গা পুলিশ সুপারের হস্তক্ষেপে মাবিয়া খাতুন ফিরে পেল সুখের সংসার

চুয়াডাঙ্গা পুলিশ সুপারের হস্তক্ষেপে মাবিয়া খাতুন ফিরে পেল সুখের সংসার

মোঃআজিজুর রহমান,চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধিঃ মোছাঃ মাবিয়া খাতুন (২৪), পিতা-মোঃ জুম্মান শেখ, গ্রাম-সুমিরদিয়া (ডাঙ্গাপাড়া), থানা ও জেলা-চুয়াডাঙ্গা এর সাথে অনুমান ০৬ বছর আগে মোঃ ফারুক হোসেন (২৭), পিতা-আরশেদ ভান্ডারী, সাং-গাইদঘাট, থানা ও জেলা-চুয়াডাঙ্গা এর ইসলামী শরীয়াহ মোতাবেক বিবাহ হয়। তাদের সংসার জীবনে মোঃ হুসাইন (০২) নামের ফুটফুটে একটি পুত্র জন্ম গ্রহন করে। বিবাহের পর থেকে যৌতুকের দাবীতে তার স্বামী ও শাশুড়ী তাকে নির্যাতন করতে থাকে। সংসারে চলমান বিরোধ এমন পর্যায়ে পৌঁছায় যে, মোঃ ফারুক হোসেন তার স্ত্রীকে তালাক দিয়ে পিতার বাড়ীতে তাড়িয়ে দেয়।

এমতাবস্থায় মোছাঃ মাবিয়া খাতুন তার পুত্র সন্তান ও নিজের অসহায়ত্ব থেকে রক্ষা পেতে পুলিশ সুপার, চুয়াডাঙ্গার নিকট একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। পুলিশ সুপার, চুয়াডাঙ্গা মহোদয় উক্ত অভিযোগটি “উইমেন সাপোর্ট সেন্টার” এ কর্মরত নারী এএসআই (নিরস্ত্র)/মিতা রানী বিশ্বাস’কে দিলে তিনি উভয় পক্ষকে পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে হাজির করেন। উইমেন সাপোর্ট সেন্টারের মাধ্যমে পুলিশ সুপার, চুয়াডাঙ্গা জনাব মোঃ জাহিদুল ইসলাম এর প্রত্যক্ষ মধ্যস্থতায় মোঃ ফারুক হোসেন তার তালাকপ্রাপ্তা স্ত্রী মোছাঃ মাবিয়া খাতুন’কে ইসলামী শরীয়াহ মোতাবেক পুনরায় স্বামীর মর্যাদা প্রদানসহ সংসার করতে সম্মত হয়। এসময় পুলিশ সুপার তাদেরকে একটি কম্বল প্রদান করেন এবং বাকী জীবন একই কম্বলের নিচে অতিবাহিত করার অঙ্গীকারাবদ্ধ করেন। ফলে পুলিশ সুপার, চুয়াডাঙ্গা মোঃ জাহিদুল ইসলাম এর হস্তক্ষেপে মোঃ হুসাইন ফিরে পেল তার বাবার আদর স্নেহ। অন্য দিকে মোছাঃ মাবিয়া খাতুন ফিরে পেল তার সুখের সংসার।





পুরাতন নিউজ খুঁজুন

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
৩১  
©2019-2021 Daily Vorer Kantho. All rights reserved.